• কাশ্মিরে গেরিলা হামলায় সিআরপিএফ জওয়ান আহত, হান্দওয়াড়ায় বনধ পালিত

ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু-কাশ্মিরে গেরিলা হামলায় আধা-সামরিক বাহিনী সিআরপিএফের এক জওয়ান আহত হয়েছেন। আজ (বুধবার) শ্রীনগর-জম্মু মহাসড়কে জজ্ঝর কোটলি এলাকায় আধাসামরিক বাহিনী সিআরপিএফের একটি দলের উপরে অজ্ঞাত গেরিলারা আচমকা গুলিবর্ষণ করলে ওই ঘটনা ঘটে।

সিআরপিএফ জওয়ানরা সড়কটিতে নিয়মিত কর্মসূচি অনুযায়ী যানবাহন থামিয়ে তল্লাশি চালাচ্ছিলেন। এসময়য় একটি ট্রাক থেকে অজ্ঞাত গেরিলারা গুলিবর্ষণ করে।

হামলাকারী গেরিলারা ঘটনাস্থল থেকে নিরাপদে পালিয়ে যেতে সমর্থ হওয়ায় প্রশাসনের পক্ষ থেকে গোটা এলাকায় উচ্চসতর্কতা জারি করা হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে কমপক্ষে ৩/৪ জন সন্ত্রাসী পালিয়ে গেছে বলে জম্মু-কাশ্মির পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

জম্মুর সিনিয়র পুলিশ সুপার বিবেক গুপ্তা বলেন, চেকপয়েন্টে ট্রাক থামিয়ে তল্লাশি চালানোর সময় সন্ত্রাসীরা হামলা চালায়।

ওই ঘটনার পরে দ্রুত সেনাবাহিনী, আধাসামরিক বাহিনী সিআরপিএফ ও পুলিশের স্পেশাল অপারেশন গ্রুপের সদস্য সমন্বিত যৌথবাহিনী সংশ্লিষ্ট এলাকা ঘিরে ফেলে হামলাকারীদের সন্ধানে তল্লাশি অভিযান চালাচ্ছে।

নিরাপত্তা বাহিনী একটি ট্রাকসহ তার চালক ও সহকারীকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করছে। আটক ট্রাক থেকে একটি একে ৪৭ রাইফেল, ম্যাগজিন ও গুলি উদ্ধার হয়েছে।

এদিকে, আজ অন্য একটি ঘটনায় হান্দওয়াড়ার ল্যানগেট এলাকায় সর্বাত্মক বনধ পালিত হয়েছে। গতকাল (মঙ্গলবার) নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে সংঘর্ষে লিয়াকত আহমেদ লোন ও ফুরকান আহমেদ লোন নামে লস্কর-ই-তাইয়্যেবার দুই সদস্য নিহত হওয়ার প্রতিবাদে আজ স্থানীয় মানুষজন বনধ পালন করেন।

বনধের ফলে সংশ্লিষ্ট এলাকার দোকানপাট, বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান ও গণপরিবহন ব্যবস্থা বন্ধ ছিল। যেকোনো অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে গোটা এলাকা জুড়ে নিরাপত্তা বাহিনীর জওয়ানদের মোতায়েন করা হয়।#

পার্সটুডে/এমএএইচ/এআর/১২

 

২০১৮-০৯-১২ ১৫:৪২ বাংলাদেশ সময়
মন্তব্য