২০১৯-০১-১৮ ০৭:৩৯ বাংলাদেশ সময়
  • ইরান-ইরাক সম্পর্কে হস্তক্ষেপ করার অধিকার আমেরিকার নেই: জারিফ

ইরাক সফররত ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোহাম্মাদ জাওয়াদ বলেছেন, ইরাকের সঙ্গে তার দেশের সম্পর্কে হস্তক্ষেপ করার অধিকার আমেরিকার নেই। তিনি ইরাকের নাজাফ প্রদেশের ব্যবসায়ীদের সঙ্গে এক বৈঠকের পর এ হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন। জারিফ বলেন, ইরাক ও ইরাকের সম্পর্ক কখনোই কৃত্রিম ছিল না।

তিনি আরো বলেন, ইরাক ও ইরানের নাগরিকদের জন্য পরস্পরের দেশে বিনা ভিসায় ভ্রমণ সুবিধা উন্মুক্ত করতে তেহরান প্রস্তুত রয়েছে। এ ছাড়া, দু’দেশের মধ্যে ব্যবসা বাড়াতে ট্যারিফ কমানো বা পুরোপুরি তুলে দেয়া এবং সীমান্ত এলাকায় অসংখ্য শিল্পাঞ্চল গড়ে তুলতেও আগ্রহী তার দেশ।

ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইরাকের বাগদাদ, ইরবিল, সুলাইমানিয়া, কারবালা ও নাজাফ শহরে তার পাঁচদিনের সফরের কথা উল্লেখ করে বলেন, এই সফরে ইরাকি কর্মকর্তাদের সঙ্গে তার ফলপ্রসূ আলোচনা হয়েছে। ইরাক ও ইরানের মধ্যে এক অত্যন্ত উষ্ণ সম্পর্ক বিরাজ করছে বলেও তিনি মন্তব্য করেন।

এর আগে বুধবার ইরাকের কারবালা সফরে গিয়ে মোহাম্মাদ জাওয়াদ জারিফ বলেছিলেন, উগ্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী দায়েশের বিরুদ্ধে বিজয় এসেছে ইরাক ও সিরিয়ার জনগণের সীমাহীন লড়াইয়ের ফলে; এতে আমেরিকার কোনো ভূমিকা ছিল না।  কারবালায় ইরাক ও ইরানের ব্যবসায়ীদের একটি সম্মেলনে তিনি একথা বলেন।

ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমেরিকা বিশ্বের কোথাও সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে সফলতা পায়নি। ইরাক ও সিরিয়ায় এ সফলতা এসেছে এ কারণে যে, দেশ দুটির জনগণ সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে জেগে উঠেছিলেন, তারা নিজেরা লড়াই এবং আত্মত্যাগ করেছেন। সে কারণে আমেরিকার এখানে কোনো ভূমিকা নেই বরং এটা এই দুটি দেশের অর্জন। #

পার্সটুডে/মুজাহিদুল ইসলাম/১৮                       

ট্যাগ

মন্তব্য