সৌদি আরব এবং ফ্রান্স দুই দেশের মধ্যে বিশেষ তথ্য সংরক্ষণের উদ্দেশ্যে একটি সামরিক চুক্তিতে সই করেছে। দারিদ্রপীড়িত ইয়েমেনের ওপর সৌদি আরবের বর্বর আগ্রাসনে সমর্থন দেয়ার জন্য ফ্রান্স যখন বিশ্বব্যাপী সমালোচনার মুখে পড়েছে তখন এ চুক্তির খবর এলো।

সৌদি আরবের যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান এবং ফরাসি প্রতিরক্ষামন্ত্রী ফ্লোরেন্স পার্লি লোহিত সাগর উপকূলবর্তী জেদ্দা নগরীতে এ চুক্তিতে সই করেছেন বলে সৌদি আরবের রাষ্ট্রীয় বার্তাসংস্থা 'সৌদি প্রেস এজেন্সি' গতকাল (সোমবার) এ খবর দিয়েছে। যুবরাজ বিন সালমান সৌদি আরবের প্রতিরক্ষামন্ত্রী হিসেবেও দায়িত্ব পালন করছেন। এছাড়া, বৈঠকে বিন সালমান এবং পার্লি দুই দেশের মধ্যে বিভিন্ন ক্ষেত্রে দ্বিপক্ষীয় সহযোগিতা বিশেষ করে সামরিক সম্পর্ক এবং আঞ্চলিক পরিস্থিতির নানা দিক নিয়ে পর্যালোচনা করেছেন বলে সংবাদ মাধ্যমটি জানিয়েছে।

চুক্তি সই এবং বৈঠকের সময় সৌদি আরবের সামরিক বাহিনীর চিফ অব স্টাফ জেনারেল ফায়াদ বিন হামেদ আল রোয়ালি এবং রিয়াদে নিযুক্ত ফরাসি রাষ্ট্রদূত ফ্রাঙ্কো গুঁয়েতেসহ উভয় দেশের শীর্ষ স্থানীয় কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। যুবরাজ  মিহাম্মদ বিন সালমান গত এপ্রিলে তিন দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে ফ্রান্সে গিয়ে দুই দেশের মধ্যে বিভিন্ন ক্ষেত্রে ১ হাজার ৮০০ কোটি ডলার অর্থ মূল্যের চুক্তি সই করার পর সৌদি আরব সফরে এলেন ফরাসি প্রতিরক্ষামন্ত্রী পার্লি।#

পার্সটুডে/বাবুল আখতার/১০

 

ট্যাগ

২০১৮-০৭-১০ ১৬:০৭ বাংলাদেশ সময়
মন্তব্য