• সিরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়ালিদ আল মুয়াল্লেম
    সিরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়ালিদ আল মুয়াল্লেম

সিরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়ালিদ আল মুয়াল্লেম বলেছেন, ব্রিটিশ গোয়েন্দাদের সহযোগিতায় উগ্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী নুসরা ফ্রন্ট রাোয়নিক গ্যাস পেয়েছে এবং সেগুলো তারা নিজেরা ব্যবহার করে সিরিয়ার সরকারের ওপর দোষ চাপাবে।

গতকাল (শনিবার) রাশিয়ার আরটি টেলিভিশনের সঙ্গে এক সাক্ষৎকারে মুয়াল্লেম এ অভিযোগ করেন। তিনি বলেন, ইদলিব প্রদেশের যে এলাকায় কথিত হোয়াইট হেলমেট সেনাদের নিয়ন্ত্রণ রয়েছে সেখানে রাসায়নিক গ্যাসের কন্টেইনার পেঁছে দিতে ব্রিটিশ গোয়েন্দারা নুসরা ফ্রন্টকে সহায়তা করেছে।

সিরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এই পদক্ষেপের অর্থ হলো দীর্ঘ প্রতীক্ষিত সামরিক অভিযান শুরুর সঙ্গে সঙ্গেই ইদলিবের বেসামরিক লোকজনের ওপর রাসায়নিক হামলা হবে এবং সরকারি সেনাদের ওপর দোষ চাপানো হবে।

আমেরিকার প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত সন্ত্রাসীরা

গত কয়েক মাস ধরে সিরিয়ার সরকার ইদলিব প্রদেশকে সন্ত্রাসীদের হাত থেকে মুক্ত করার জন্য চূড়ান্তভাবে সামরিক অভিযান পরিচালনার পরিকল্পনা করছে। ইদলিব হচ্ছে সিরিয়ায় তৎপর উগ্র সন্ত্রাসীদের হাতে থাকা সর্বশেষ শক্ত ঘাঁটি।  

এর আগে দুমা ও খান শায়খুন এলাকায় সামরিক অভিযানের সময় সিরিয়ার সেনাদের বিরুদ্ধে রাসায়নিক হামলার অভিযোগ তোলা হয়। অথচ সিরিয়ার সরকার বহু আগেই আন্তর্জাতিক তদারকিতে সমস্ত রাসায়নিক অস্ত্র ধ্বংস করেছে। আগের সব হামলার অভিযোগ সিরিয়ার সরকার নাকচ করেছে এবং ইদলিব অভিযানের আগে থেকেই দামেস্ক ও তার মিত্ররা সন্ত্রাসীদের পক্ষ থেকে সম্ভাব্য রাসায়নিক হামলার বিষয়ে বার বার সতর্ক করে তথ্য-প্রমাণ দিয়ে আসছে।#

পার্সটুডে/এসআইবি/২

ট্যাগ

২০১৮-০৯-০২ ১৯:৫১ বাংলাদেশ সময়
মন্তব্য