• ওয়াদি-উস-সালামের একাংশ
    ওয়াদি-উস-সালামের একাংশ

ইরাকের পবিত্র নগরী নাজাফে রয়েছে বিশ্বের বৃহত্তম কবরস্থান ওয়াদি-উস-সালাম। ওয়াদি-উস-সালামের শব্দের অর্থ, 'শান্তি উপত্যকা।' কবরস্থানটি ১৪শ বছর আগে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল বলে উল্লেখ করা হয়। এখানে হজরত হুদ এবং হজরত সালেহ (আ)এর মাজার রয়েছে। এ ছাড়া রয়েছে আরো অনেক নবীর মাজার।

এ পর্যন্ত এখানে কত লাখ মানুষকে দাফন করা হয়েছে তার কোনো হিসাব নেই। সারি সারি কবরগুলোর কোনোটিতে রয়েছে সমাধিফলক, কোনোটিতে তাও নেই। এখানে বহুখোপ বিশিষ্ট অনেক পারিবারিক কবর রয়েছে। আয়তনের দিক থেকে ওয়াদি-উস-সালাম একটি মাঝারি মাপের শহরের সমান। এর আয়তন প্রায় ১৪৬৫ একর।

হজরত হুদ এবং সালেহ (আ) এর মাজার

হজরত আলী(আ) এর মাজারের কাছাকাছি এ কবরে দাফন হওয়ার আকুতি রয়েছে অনেক বিশ্বাসীর মনেই। বলা হয়, এখানে দাফন হলে তার কবরের আজাব হবে না। বা হবে না সওয়াল-জবাবও।  এ ছাড়া,  কিয়ামতের দিন হজরত আলী(আ)এর সাথেই উঠতে পারবেন এখানে দাফনকৃতরা। এদিকে, এ কবরস্থান চত্বরেই রয়েছে মাকামে হজরত মাহাদি (আ)।

পার্সটুডে/মূসা রেজা/১৫

 

ট্যাগ

২০১৮-১১-১৫ ১৭:০১ বাংলাদেশ সময়
মন্তব্য