• সোমবার সোচিতে পুতিনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন এরদোগান
    সোমবার সোচিতে পুতিনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন এরদোগান

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন, ইরান ও তুরস্কের সঙ্গে তার দেশের সহযোগিতা দ্রুততম সময়ের মধ্যে সিরিয়া সংকটের সমাধান এনে দিয়েছে। রাশিয়ার সোচি শহরে সোমবার তুর্কি প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এরদোগানের সঙ্গে এক বৈঠকে এ মন্তব্য করেন পুতিন।

তিনি বলেন, “আমি সন্তোষের সঙ্গে বলতে চাই আস্তানা শান্তি প্রক্রিয়ায় নিশ্চয়তাকারী তিন দেশ রাশিয়া, ইরান ও তুরস্কের মধ্যেকার সহযোগিতা সিরিয়া সংকট সমাধানে বাস্তব ফল এনে দিয়েছে।” তেহরান ও আঙ্কারার সঙ্গে মস্কো এই সহযোগিতা চালিয়ে যাবে বলে পুতিন প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।

বৈঠকে দুই নেতা দীর্ঘমেয়াদে সিরিয়ায় স্বাভাবিক অবস্থা ফিরিয়ে আনতে এবং একটি রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা সৃষ্টি করার লক্ষ্যে প্রচেষ্টা জোরদার করতে একমত হন।

রুশ প্রেসিডেন্ট বলেন, “সিরিয়ায় সহিংসতা উল্লেখযোগ্য মাত্রায় কমে এসেছে। এখন জাতিসংঘের তত্ত্ববধানে সিরিয়ার বিভিন্ন দল ও পক্ষের মধ্যে সংলাপ চালিয়ে নেয়ারও উপযুক্ত পরিবেশ তৈরি হয়েছে।”

ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে বৈঠকে তুর্কি প্রেসিডেন্ট এরদোগান বলেন, সিরিয়াসহ মধ্যপ্রাচ্যে চলমান সহিসতা কমিয়ে আনতে আস্তানায় অনুষ্ঠিত শান্তি বৈঠকগুলো ভূমিকা রেখেছে। এখন সিরিয়ায় রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা প্রতিষ্ঠায় মনযোগী হতে হবে বলে তিনি মন্তব্য করেন।

আস্তানা সম্মেলন (ফাইল ছবি)

কাজাখস্তানের রাজধানী আস্তানায় এ পর্যন্ত সিরিয়া বিষয়ক সাত দফা বৈঠক হয়েছে। এসব বৈঠকে সিরিয়ার সরকার এবং সশস্ত্র বিদ্রোহী গ্রুপগুলো অংশ নিয়েছে। আর এসব বৈঠকের ফলাফল বাস্তবায়নের নিশ্চয়তা দিয়েছে ইরান, রাশিয়া ও তুরস্ক।

আস্তানা বৈঠকের উল্লেখযোগ্য ফলাফল ছিল সিরিয়ার ইদলিব, উত্তর হোমস এবং পূর্ব ও দক্ষিণ ঘৌতা এলাকাকে নিয়ে একটি নিরাপদ অঞ্চল ঘোষণা করা। ওই ঘোষণার পর সিরিয়ায় বিদেশি মদদে চাপিয়ে দেয়া সহিংসতা অনেকাংশে কমে যায়।#

পার্সটুডে/মুজাহিদুল ইসলাম/১৪

 

২০১৭-১১-১৪ ০৮:৫৬ বাংলাদেশ সময়
মন্তব্য