২০১৮-১২-১৮ ১০:২৩ বাংলাদেশ সময়
  • একটি এসইউ-২৭ যুদ্ধবিমান (ফাইল ছবি)
    একটি এসইউ-২৭ যুদ্ধবিমান (ফাইল ছবি)

ইউক্রেনের সঙ্গে ক্রমবর্ধমান উত্তেজনার জের ধরে ক্রিমিয়া উপত্যকায় বেশ কয়েকটি যুদ্ধবিমান মোতায়েন করেছে রাশিয়া।

রাশিয়ার  ইন্টারফ্যাক্স বার্তা সংস্থা জানিয়েছে, ক্রিমিয়ার পুনর্নিমিত বেলবেক বিমান ঘাঁটিতে অন্তত ১০টি এসইউ-২৭ ও এসইউ-৩০ জঙ্গিবিমান মোতায়েন করা হয়েছে। এসব যুদ্ধবিমান ‘স্থায়ীভাবে’ মোতায়েন করা হয়েছে বলেও আভাস দিয়েছে বার্তা সংস্থাটি।

সের্গেই ল্যাভরভ

রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে বলেন: ডিসেম্বর মাস শুরু হওয়ার পর ক্রিমিয়া সীমান্তে ইউক্রেন ‘সামরিক উসকানিমূলক তৎপরতা’র প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছে।  ল্যাভরভ আরো বলেন, মস্কো ইউক্রেনকে এই পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করতে দেবে না এবং এই পরিকল্পনার জন্য কিয়েভকে অনুতপ্ত হতে হবে।

রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী কিয়েভকে ‘নাৎসীবাদীদের মতো আচরণ’ করার দায়ে অভিযুক্ত করে বলেন, রাশিয়া কখনো ইউক্রেনের সঙ্গে যুদ্ধে লিপ্ত হবে না। ইউক্রেনের দোনবাস অঞ্চলের জনগণই দেশটির সরকারের বিরুদ্ধে লড়াই করছে বলে ল্যাভরভ দাবি করেন।

রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রীর এসব উত্তেজনাপূর্ণ বক্তব্যের পরই ক্রিমিয়া উপত্যকায় রুশ জঙ্গিবিমান মোতায়েনের খবর এল। ২০১৪ সালে ক্রিমিয়া প্রজাতন্ত্রে অনুষ্ঠিত এক গণভোটের জের ধরে ওই উপত্যকাকে রুশ ফেডারেশনে অন্তর্ভুক্ত করা হয়।#

পার্সটুডে/মুজাহিদুল ইসলাম/১৮

ট্যাগ

মন্তব্য