২০১৯-০৩-২৬ ১৮:৫৩ বাংলাদেশ সময়
  • ট্রাম্প (বামে) ও নেতানিয়াহু (ডানে)
    ট্রাম্প (বামে) ও নেতানিয়াহু (ডানে)

গোলান মালভূমিকে ইহুদিবাদী ইসরাইলের ভূখণ্ড হিসেবে ঘোষণার প্রতিবাদে আজ (মঙ্গলবার) সিরিয়ার বিভিন্ন এলাকায় বিক্ষোভ হয়েছে। বিক্ষোভকারীরা বলেছেন, গোলান হচ্ছে সিরিয়ার অবিচ্ছেদ্য অংশ। সিরিয়ার ভূখণ্ডকে দখলদার ইসরাইলের ভূখণ্ড হিসেবে ঘোষণার অধিকার কারো নেই। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প অপর দেশের ভূখণ্ডকে ইসরাইলের কাছে তুলে দেওয়ার অধিকার রাখে না বলে তারা মন্তব্য করেছেন।

সিরিয়ার বিক্ষোভকারীরা আরও বলেছেন, ট্রাম্পের ঘোষণায় বাস্তবতা পাল্টে যাবে না। সিরিয়া গোলান মালভূমিকে অবশ্যই দখলমুক্ত করবে। 

ইসরাইলের দখলে থাকা গোলান মালভূমির একাংশ

১৯৬৭ সালে ছয় দিনের আরব-ইসরাইল যুদ্ধের সময় তেল আবিব সিরিয়ার কাছ থেকে কৌশলগত এই এলাকাটি দখল করে নেয়। তবে জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক মহল কখনোই এর স্বীকৃতি দেয় নি। দশকের পর দশক ধরে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রসহ বিশ্বের দেশগুলো ইসরাইলের এই দখলদারিত্বকে প্রত্যাখ্যান করে আসছিল।

কিন্তু ট্রাম্প এবার গোটা বিশ্বকে উপেক্ষা করে দখলীকৃত ওই ভূখণ্ডের ওপর ইহুদিবাদী ইসরাইলের সার্বভৌমত্বকে স্বীকৃতি দিয়েছেন।#

পার্সটুডে/সোহেল আহম্মেদ/২৬

ট্যাগ

মন্তব্য