সুপ্রিয় পাঠক/শ্রোতা! ১২ জুলাই বৃহষ্পতিবারের কথাবার্তার আসরে স্বাগত জানাচ্ছি । আশা করছি আপনারা প্রত্যেকে ভালো আছেন। আসরের শুরুতে ঢাকা ও কোলকাতার গুরুত্বপূর্ণ বাংলা দৈনিকগুলোর বিশেষ বিশেষ খবরের শিরোনাম তুলে ধরছি।

বাংলাদেশের শিরোনাম:

  • কোটা সংস্কার আন্দোলন সুহেলকে ‘ডিবি পরিচয়ে’ তুলে নেওয়ার অভিযোগ-দৈনিক প্রথম আলো
  • দুই মাসের মধ্যে জাতীয় নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার প্রক্রিয়া শুরু করব : সিইসি-দৈনিক যুগান্তর
  • সন্ত্রাসী লেলিয়ে গণআন্দোলন দমন করা যাবে না’-দৈনিক নয়া দিগন্ত
  • রিজার্ভ চুরির মামলা : প্রতিবেদন দাখিল ২৯ আগস্ট-দৈনিক ইত্তেফাক
  • খালেদা জিয়ার রিভিউ আবেদন মুলতবি-দৈনিক মানবজমিন

ভারতের শিরোনাম:

  • বেআইনিভাবে হাজার কোটি টাকা নেওয়ার অভিযোগ, পৈলান কর্তার বাড়িতে সিবিআই-সংবাদ প্রতিদিন 
  • জমি নীতি বদলের পথে রাজ্য, ইঙ্গিত মমতার-দৈনিক আনন্দবাজার
  • ২০১৯–এ বিজেপি জিতলে হিন্দু পাকিস্তান তৈরি করবে:‌ শশী থারুর-দৈনিক আজকাল

পাঠক/শ্রোতা! এবারে চলুন, বাছাইকৃত কয়েকটি খবরের বিস্তারিত জেনে নেয়া যাক। প্রথমেই বাংলাদেশ-

দুই মাসের মধ্যে জাতীয় নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার প্রক্রিয়া শুরু করব : সিইসি-দৈনিক যুগান্তর

আগামী দুই মাসের মধ্যেই জাতীয় নির্বাচনে তফসিল ঘোষণার প্রক্রিয়ার দিকে অনুপ্রবেশ করব বলে জানিয়েছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) নুরুল হুদা। এ কারণে এর আগে অনুষ্ঠিত তিন সিটির (রাজশাহী, সিলেট, বরিশাল) নির্বাচনকে ইসি গুরুত্বপূর্ণ মনে করছে বলে জানিয়েছেন তিনি। আজ রাজধানীর আগারগাঁওয়ে নির্বাচন ভবনের সম্মেলনকক্ষে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সঙ্গে বৈঠকে সিইসি এ কথা জানান। সিইসি বলেন, এখন থেকে দুই মাসের মধ্যে জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার প্রক্রিয়ার দিকে অনুপ্রবেশ করব। সেই প্রস্তুতির আগে তিন সিটি নির্বাচন- আমাদের নির্বাচন কমিশন, মাঠপর্যায়ে যারা এ নির্বাচন পরিচালনা করবেন এবং এ নির্বাচনে সহায়তাকারী কর্মকর্তাসহ সবার জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। ইসির তফসিল অনুসারে আগামী ৩০ জুলাই রাজশাহী, সিলেট ও বরিশাল সিটিতে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড তৈরী করতে বাধ্য করা হবে: মঈন খান-দৈনিক মানবজমিন

আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগকে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড তৈরী করতে বাধ্য করা হবে বলে জানিয়েছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. আব্দুল মঈন খান। আজ বৃহস্পতিবার জাতীয় প্রেসক্লাবে ডক্টরস এসোসিয়েশন অফ বাংলাদেশ, ড্যাব এর আয়োজনে খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে এক আলোচনা সভায় তিনি একথা বলেন। তিনি বলেন, আগামী নির্বাচনের আগে সরকারকে অবশ্যই লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড তৈরিতে বাধ্য করা হবে। নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচনের মাধ্যমে জনগণের সরকার গঠন করা হবে। ইনশাআল্লাহ ২০১৮ সালের ডিসেম্বরের নির্বাচনে বেগম খালেদা জিয়া চতুর্থ বারের মত প্রধানমন্ত্রী হবেন। মঈন খান বলেন, আমরা কোথাও শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি পালন করতে পারিনা।জাতীয় প্রেসক্লাব বা দলীয় কার্যালয়ের সামনে যেখানেই যে কর্মসূচি দেয়া হোক না কেন সেখানে সরকার বাধা দিচ্ছে।

কোটা সংস্কার আন্দোলন সুহেলকে ‘ডিবি পরিচয়ে’ তুলে নেওয়ার অভিযোগ-দৈনিক প্রথম আলো

কোটা সংস্কার আন্দোলনের সংগঠন বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের যুগ্ম আহ্বায়ক এ পি এম সুহেলকে ঢাকার শান্তিনগরে একটি বাসা থেকে ‘ডিবি পরিচয়ে’ তুলে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। আজ বৃহস্পতিবার ভোর পাঁচটার দিকে চামেলীবাগে ছাত্র ইউনিয়নের সাবেক সভাপতি লাকি আক্তারের বাসা থেকে সাদাপোশাকে কয়েকজন ব্যক্তি তাঁকে তুলে নিয়ে যান। পুলিশের গোয়েন্দা শাখা ডিবি জানিয়েছে, তারা ওই নামে কাউকে আটক বা গ্রেপ্তার করেনি।

আমাকে যেন আর না মারে-রাশেদ খান-দৈনিক প্রথম আলো

কোটা সংস্কার আন্দোলনের নেতা রাশেদ খান রিমান্ড বাতিলের জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে আরজি জানাতে বলেছেন তাঁর মাকে। তাঁকে যেন আর না মারা হয়, সে বিষয়েও প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ চেয়েছেন তিনি।রাশেদের সঙ্গে তাঁর মা সালেহা বেগমের দেখা হয়েছিল মঙ্গলবার ডিবি কার্যালয়ের সামনে। রাশেদকে তখন ডিবি পুলিশের সদস্যরা হাঁটিয়ে নিকটবর্তী ঢাকা মহানগর পুলিশের সদর দপ্তরে নিয়ে যাচ্ছিলেন। ছেলের পিছু পিছু হাঁটতে গিয়ে দু-এক মিনিট যে কথা হয়েছে, তা–ই তিনি গতকাল বুধবার বিকেলে সংবাদ সম্মেলন করে জানিয়েছেন।রাজধানীর ক্রাইম রিপোর্টার্স ইউনিটির মিলনায়তনে আয়োজিত এ সংবাদ সম্মেলনে সালেহা বেগম ছাড়াও রাশেদের ছোট বোন সোনিয়া খাতুন ও স্ত্রী রাবেয়া আলো উপস্থিত ছিলেন।

সন্ত্রাসী লেলিয়ে গণআন্দোলন দমন করা যাবে না বলে মন্তব্য করেছেন বাম রাজনৈতিক দলের নেতারা। এ খবরটি ছাপা হয়েছে দৈনিক নয়া দিগন্তে।

বাংলাদেশ অধ্যয়ন কেন্দ্রের জরিপ-কোটা সংস্কারের পক্ষে ৯৪ শতাংশ মানুষ- এখবরটি পরিবেশিত হয়েছে দৈনিক মানবজমিনে।খবরটিতে লেখা হয়েছে, সরকারি চাকরিতে কোটা সংস্কারকে সমর্থন দিয়েছে দেশের ৯৪ শতাংশ মানুষ। বাংলাদেশ অধ্যয়ন কেন্দ্রের ফেসবুক জরিপে এ ফলাফল ওঠে এসেছে। ‘আপনি কি মনে করেন সরকারি চাকরির ক্ষেত্রে কোটা সংস্কার প্রয়োজন’ শীর্ষক জরিপটি চালানো হয় এ বছরের গত ৪ জুলাই থেকে ১১ জুলাই পর্যন্ত। অধ্যয়ন কেন্দ্রের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজের মাধ্যমে এ জরিফ চালানো হয়। জরিপের ফলাফলে দেখা যায়, সরকারি চাকরিতে কোটা সংস্কার বিষয়ে ১১৭২জন ভোট দেয়। এতে ৯৪ শতাংশ মানুষ কোটা সংস্কারের পক্ষে মতামত দেয়।

আইন আদালত বিষয়ক কয়েকটি খবরের দিকে দৃষ্টি দিচ্ছি।

রিজার্ভ চুরির মামলা : প্রতিবেদন দাখিল ২৯ আগস্ট-দৈনিক ইত্তেফাক

বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ চুরির ঘটনায় মুদ্রা পাচার ও তথ্যপ্রযুক্তি আইনে দায়ের করা মামলায় তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের তারিখ পিছিয়েছে। আগামী ২৯ আগস্ট তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের পরবর্তী তারিখ ধার্য করেছে আদালত। আজ মামলাটি তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য ধার্য ছিল। কিন্তু এ দিন মামলার তদন্ত সংস্থা সিআইডি প্রতিবেদন দাখিল করতে পারেনি। এ জন্য ঢাকা মহানগর হাকিম এ কে এম মঈন উদ্দিন সিদ্দিকী প্রতিবেদন দাখিলের নতুন এ তারিখ ঠিক করেন।২০১৬ সালের ৪ ফেব্রুয়ারি সুইফট সিস্টেম ব্যবহার করে ভুয়া বার্তা পাঠিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল রিজার্ভ ব্যাংক অব নিউইয়র্ক থেকে বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রায় ১০ কোটি ১০ লাখ ডলার চুরি হয়। এ অর্থের একটি বড় অংশ ফিলিপাইনের রিজাল কমার্শিয়াল ব্যাংকিং কর্পোরেশনের (আরসিবিসি) মাধ্যমে ফিলিপাইনে চলে যায়।

খালেদা জিয়ার রিভিউ আবেদন মুলতবি-দৈনিক মানবজমিন

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় খালেদা জিয়ার আপিল নিষ্পত্তিতে বেধে দেয়া সময়ের রিভিউ আবেদন মুলতবি করেছেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। আজ বৃহস্পতিবার প্রধান বিচার বিচারপতির নেতৃত্বে চার সদস্যের আপিল বিভাগের বেঞ্চ এ আদেশ দেন। পাঁচ বছরের সাজার রায়ের বিরুদ্ধে খালেদা জিয়ার করা আপিল ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে নিষ্পত্তি করতে হাইকোর্টকে নির্দেশ দিয়েছিলেন আপিল বিভাগ। তবে ১৬ মে আপিল বিভাগের দেয়া সেই সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা চেয়ে আবেদন করেন খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা। গত ৯ জুলাই শুনানি শেষে আদেশের জন্য আজ বৃহস্পতিবার দিন নির্ধারণ করেছিলেন আপিল বিভাগ। আদালত আজ খালেদা জিয়া ওই নির্দেশের রিভিউ চেয়ে করা আবেদন ‘স্ট্যান্ড ওভার’ করেছেন।

এবার ভারতের কয়েকটি খবর তুলে ধরছি

২০১৯–এ বিজেপি জিতলে হিন্দু পাকিস্তান তৈরি করবে:‌ শশী থারুর-দৈনিক আজকাল

ফের তীব্র ভাষায় বিজেপিকে আক্রমণ করলেন কংগ্রেস নেতা শশী থারুর।  তিরুঅনন্তপূরমে একটি জনসভায় যোগ দিয়ে প্রবীণ কংগ্রেস নেতা বলেন, ‘২০১৯–এর লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি পুনর্নির্বাচিত হলে  ভারতকে হিন্দু পাকিস্তানে রূপান্তরিত করবে। নতুন করে সংবিধান লিখবে বিজেপি। সংখ্যালঘুদের যাবতীয় অধিকার তাঁরা হরণ করবে। পাকিস্তান যেভাবে একটি ধর্মের উপর ভিত্তি করেই তৈরি হয়েছে। অন্য কোনও ধর্মের অধিকার সেখানে নেই। সেভাবেই বিজেপিও ভারতকে সেভাবেই হিন্দু রাষ্ট্র হিসেবে তৈরি করবে। অথচ ভারত সবসময় সূব ধর্মের সমানাধিকারে বিশ্বাস করেছে। বিজেপি তা খারিজ করে নতুন করে সংবিধান লিখবে। 

বিজেপি এবং আরএসএসের উদ্দেশ্যই হলে পাকিস্তানের মতই ভারতকে হিন্দু রাষ্ট্র হিসেবে তৈরি করা। একটি ধর্মের অধিপত্যই সেখানে বিরাজ করবে। অন্যান্য ধর্মের মানুষের কোনও অদিকার থাকবে না। যাকে বলা যায় হিন্দু পাকিস্তান।’‌শশী থারুর এই বক্তব্য শোনার পর তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে বিজেপি।

বেআইনিভাবে হাজার কোটি টাকা নেওয়ার অভিযোগ, পৈলান কর্তার বাড়িতে সিবিআই-দৈনিক সংবাদ প্রতিদিন

চিটফান্ড কাণ্ডে জড়াল বেসরকারি সংস্থা পৈলানের নাম। বেআইনিভাবে হাজার কোটি টাকা তোলার অভিযোগ। এবার অভিযোগ উঠল বেসরকারি সংস্থা পৈলানের বিরুদ্ধে। এহেন অভিযোগ পেয়েই তদন্তে নেমেছেন সিবিআইয়ের আধিকারিকরা। এই মুহূর্তে পৈলানের কর্ণধার অপূর্ব সাহার বাড়িতে ম্যারাথন তল্লাশি শুরু করেছেন সিবিআইয়ের গোয়েন্দারা। বালিগঞ্জ পার্কের আবাসনে পৌঁছে গিয়েছেন ছ’জনের একটি দল। চলছে অভিযান। বেআইনি টাকা ঠিক কী কী স্কিম দেখিয়ে সংগ্রহ করা হয়েছিল তাই খতিয়ে দেখা হচ্ছে। কর্ণধারের বাড়িতে সেই সংক্রান্ত নথির হদিশ করতেই চলছে তল্লাশি। জানা গিয়েছে, বেশ কিছু দিন আগেই সিবিআইয়ের কাছে পৈলানের বিরুদ্ধে অভিযোগ জমা পড়ে। সেবি-র তরফ থেকেও অভিযোগ জানানো হয় যে, সংস্থার বিভিন্ন অফিস মারফত কোটি কোটি টাকা আসছে। মূলত চিটফান্ডের দোহাই দিয়েই তোলা হচ্ছে টাকা।

জমি নীতি বদলের পথে রাজ্য, ইঙ্গিত মমতার-দৈনিক আনন্দবাজার

এত দিন ধরে রাজ্য যে শিল্পনীতি অনুসরণ করে আসছে, তাতে শিল্প পরিকাঠামো উন্নয়ন নিগমের জমি হস্তান্তরের ক্ষেত্রে প্রস্তাবিত লগ্নির ১৫ শতাংশ টাকা খরচ বাধ্যতামূলক। কিন্তু এ বারে সেই নীতি বদলের ইঙ্গিত দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিজে।এ দিন আলিপুরদুয়ার জেলার প্রশাসনিক বৈঠকে বণিকসভা সিআইআই-এর প্রতিনিধি মোহন দেবনাথ বলেন, ‘‘শিল্প বিকাশ কেন্দ্রে জমি লিজ দেওয়ার নথি হাতে পেতে দেরি হচ্ছে বলে দ্রুত শিল্প বাড়ছে না।’’ মুখ্যমন্ত্রী শিল্প দফতরের সচিবদের কাছ থেকে জানতে চান, কেন নথি দিতে দেরি হচ্ছে? সচিবরা এর উত্তরে জানান, উন্নয়ন নিগমের নিয়ম অনুসারে, জমি পাওয়ার পরে ব্যবসায়ীদের প্রস্তাবিত লগ্নির ১৫ শতাংশ টাকা যন্ত্র, শ্রমিক নিয়োগের মতো কাজে খরচ করতে হবে। সেই নথি দেখালে তবে লিজ চুক্তির নথি হাতে মেলে।#

পার্সটুডে/গাজী আবদুর রশীদ/১২

* প্রতি মুহূর্তের খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিন

২০১৮-০৭-১২ ১৫:২২ বাংলাদেশ সময়
মন্তব্য