২০১৮-১১-১৭ ১৯:১৭ বাংলাদেশ সময়

পাঠক! সালাম ও শুভেচ্ছা নিন। আশা করি ভালোই আছেন আপনারা।

আজকের আসরেও আমরা গত দুটি আসরের ধারাবাহিকতায় ইরানের বিরুদ্ধে সাদ্দাম সরকারের যুদ্ধ এবং ইরানী জাতির পবিত্র প্রতিরক্ষা সম্পর্কে কথা বলার চেষ্টা করবো। আপনাদের নিশ্চয়ই মনে আছে এ সম্পর্কে মুহাম্মাদ এবং রমিন তাদের কথোপকথনের এক পর্যায়ে ইরানী জনগণের ওপর সাদ্দাম বাহিনীর রাসায়নিক বোমা ব্যবহারের প্রসঙ্গটি নিয়ে এসেছিল। রমিন ইরানের বিরুদ্ধে ইরাকের চাপিয়ে দেওয়া যুদ্ধের ওপর অনেকগুলো প্রামাণ্য চলচ্চিত্র সংগ্রহ করেছে।সেগুলোর মধ্য থেকে একটি ফিল্ম মুহাম্মাদকে দেখার জন্যে দেয়। মুহাম্মাদ ফিল্মটি দেখে। ফিল্মটিতে ইরাকী সেনারা খুররামশাহর দখল করার পরের পরিস্থিতি দেখানো হয়েছে। শহরটি পরিপূর্ণভাবে বিধ্বস্ত হয়ে গিয়েছিল, বেশিরভাগ ঘরবাড়ি নষ্ট হয়ে গেছে,শহরে সেখানকার অধিবাসীদের কাউকেই দেখতে পাওয়া যায় নি।

 

ফিল্মটির অপরাংশে দখলদার ইরাকী সেনাদের সাথে ইরানীদের সংঘর্ষের চিত্র দেখানো হয়েছে এবং ইরানীদের হাতে খুররামশাহরের বিজয়ের চিত্র ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। খুররামশাহর মুক্ত হবার পর জনগণের মাঝে আনন্দের যে জোয়ার বয়ে গিয়েছিল তা ভাষায় বর্ণনার অযোগ্য। সবাই আনন্দিত হয়েছিল। তেহরানে এবং ইরানের অন্যান্য শহরে সর্বত্র আলোকসজ্জা করা হয়েছিল। খুররামশাহর দখলমুক্তির বার্ষিকী ইরানী জনগণের জন্যে একটি গর্বের দিন। মুহাম্মাদ এবং রমিন এ বিষয়টি নিয়ে কথা বলছিল। তাদের কথাবার্তায় ব্যবহৃত শব্দগুলোর অর্থ প্রথমেই জেনে নেওয়া যাক।

ديشب - من ديدم - فيلم - جنگ - صدام - ايران - چه طور - خيلي - جالب - من فکر نمي کردم - اين طور - آن است - آن باشد - خرمشهر - کاملا - آن خراب شده بود - آنها رفتند - عراق - عراقيها - آنها اشغال کردند - خانه - مردم - تاسيسات - شهر - آنها نابود كردند - ايراني - ايراني ها - چگونه - آنها توانستند - نيرو - نيروها - اشغال - اشغالگر - آنها پس بگيرند - کمک - ارتش - سپاه - آنها رفتند - نبرد - دلير- دليرانه - دربرابر - متجاوز - دست - آنها آزاد كردند - راستي - چند سال - آن طول کشيد - دفاع - مقدس - هشت سال - روزها - سخت آنها پشت سر گذاشتند - کشورها - اروپايي - امريکا - آنها کمک مي کردند - تسليحاتي - مالي - تنها - چه چيزي - آن باعث شد - نا اميد - آنها بشوند - آنها نشوند - ايمان - خدا - رهبري - امام خميني - مهم - به نظر من - عشق - ما فراموش مي کنيم - ما نبايد فراموش کنيم - عاشق - کشور

 

গতরাত / আমি দেখেছি / চলচ্চিত্র / যুদ্ধ / সাদ্দাম / ইরান / কেমন / অনেক / সুন্দর / আমি ভাবতাম না / এরকম / তা / তা হবে / ইরানের একটি শহরের নাম / পুরোপুরি / তা নষ্ট হয়ে গিয়েছিল / তারা চলে গেছে / ইরাক / ইরাকীরা / তারা দখল করেছে / ঘর / জনগণ / স্থাপনা / শহর / তারা ধ্বংস করেছে / ইরানী / ইরানীরা / কীভাবে / তারা পেরেছে / সেনা / সেনারা / দখল / দখলদার / তারা ফিরিয়ে নিতে / সাহায্য / সেনা / গার্ড বাহিনী / তারা গেছে / যুদ্ধ / নির্ভীক / বীরত্বের সাথে / বিপরীতে / আগ্রাসী / হাত / তারা মুক্ত করেছে / সত্যিই / ক'বছর / তা দীর্ঘায়িত হয়েছে / রক্ষা / পবিত্র / আট বছর / দিনগুলো / কঠিন / তারা অতিক্রম করেছে / দেশগুলো / ইউরোপীয় / আমেরিকা / তারা সাহায্য করছিল / অস্ত্রশস্ত্র / আর্থিক / কেবল / কোন জিনিস / তা কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে / হতাশ / তারা হওয়ার / তারা না হওয়ার / বিশ্বাস / খোদা / নেতৃত্ব / ইমাম খোমেনী / গুরুত্বপূর্ণ / আমার দৃষ্টিতে / প্রেম / আমরা ভুলে যাই / আমাদের ভুলে যাওয়া উচিত নয় / প্রেমিক / দেশ।  

পাঠক ! নতুন শব্দগুলোর অর্থ জানলেন এতোক্ষণ। এবারে মনোযোগের সাথে রমিন এবং মুহাম্মাদের কথোপকথন শুনুন। তারা একটি কামরায় বসে কথা বলছে। তাদের কথাগুলো যথারীতি আপনাদের বোঝার সুবিধার্থে অনুবাদ করে দিচ্ছি।

محمد - ديشب فيلم جنگ صدام عليه ايران را ديدم . رامين - چه طور بود ؟ محمد - خيلي جالب بود . فکر نمي کردم اين طور باشد . خرمشهر کاملا خراب شده بود . رامين - بله . عراقيها خرمشهر را اشغال کردند و خانه هاي مردم و تاسيسات شهر را نابود كردند . محمد - ايراني ها چگونه توانستند خرمشهر را از نيروهاي اشغالگر پس بگيرند ؟ رامين - مردم به کمک ارتش و سپاه رفتند و پس از يك نبرد دليرانه دربرابر نيروهاي ارتش صدام ، خرمشهر را از دست متجاوزان آزاد كردند . محمد - راستي جنگ چند سال طول کشيد ؟‌رامين - دفاع مقدس مردم ايران ، هشت سال طول کشيد . محمد - حتما ايرانيها روزهاي سختي را پشت سر گذاشتند !رامين - بله . کشورهاي اروپايي و آمريکا به عراق کمک هاي تسليحاتي و مالي مي کردند ، اما ايران تنها بود . محمد - چه چيزي باعث مي شد ايرانيها نااميد نشوند ؟ رامين - ايمان به خدا و رهبري امام خميني خيلي مهم بود . محمد - به نظر من عشق به ايران را نبايد فراموش کنيم . ايرانيها عاشق کشورشان هستند .

মুহাম্মাদ : গতরাতে ইরানের বিরুদ্ধে সাদ্দামের যুদ্ধের ফিল্মটা দেখলাম।রমিন : কেমন ছিল?মুহাম্মাদ : খুবই সুন্দর। ভাবতেও পারি নি এমন হবে। খুররামশাহর পুরোপুরি ধ্বংস হয়ে গিয়েছিল।রমিন : হ্যাঁ ! ইরাকীরা খুররামশাহর দখল করেছিল এবং মানুষের ঘরবাড়ি আর শহরের স্থাপনাগুলো ধ্বংস করে দিয়েছিল।মুহাম্মাদ : ইরানীরা কীভাবে খুররামশাহরকে দখলদার বাহিনীর কাছ থেকে ফিরিয়ে নিতে সক্ষম হলো?রমিন : জনগণ সেনাবাহিনী এবং গার্ড বাহিনীর সাহায্যে এগিয়ে গিয়েছিল এবং সাদ্দাম বাহিনীর সাথে বীরত্বপূর্ণ এক যুদ্ধের পর খুররামশাহরকে আগ্রাসীদের হাত থেকে মুক্ত করেছিল।মুহাম্মাদ : আচ্ছা কতো বছর ধরে যুদ্ধ হয়েছিল?রমিন : ইরানী জনগণের পবিত্র প্রতিরক্ষা যুদ্ধ ৮ বছর ধরে চলেছিল।মুহাম্মাদ : ইরানীরা নিশ্চয়ই দুর্বিসহ দিন কাটিয়েছিল।রমিন : হ্যাঁ! ইউরোপীয় দেশগুলো এবং আমেরিকা ইরাককে অস্ত্র এবং অর্থ দিয়ে সাহায্য করেছিল কিন্তু ইরান ছিল একা।মুহাম্মাদ : ইরানীদের হতাশ না হবার পেছনে কারণটা কী ছিল?রমিন : আল্লাহর প্রতি ঈমান এবং ইমাম খোমেনী (রহ) এর নেতৃত্বও ছিল গুরুত্বপূর্ণ।মুহাম্মাদ : আমার দৃষ্টিতে ইরানের প্রতি ভালোবাসার ব্যাপারটা ভোলা উচিত নয়। ইরানীরা স্বদেশপ্রেমিক।

 

মুহাম্মাদ যথার্থই বলেছে। ইরানীদের সমস্ত অস্তিত্ব জুড়ে রয়েছে স্বদেশপ্রেম। ইরানের বিরুদ্ধে সাদ্দাম বাহিনীর যুদ্ধের শুরুর দিকে সাদ্দাম বাহিনী ইরানের বিভিন্ন ভূখণ্ডে অতর্কিত আগ্রাসন চালায় এবং খুররামশাহর দখল করে নেয়। খুররামশাহর দখল করার পর ইমাম খোমেনী (রহ) এর আদেশে সমগ্র ইরানের জনগণ সংগঠিত হয়ে সেনাবাহিনী ও গার্ড বাহিনীর সহযোগিতায় এগিয়ে যায় এবং সাদ্দাম বাহিনীর সাথে লড়াই করে। তুমুল এক যুদ্ধের পর শত্রুবাহিনী মারাত্মকভাবে পরাজিত হয় এবং খুররামশাহর তার মূল ভূখণ্ড ইরানে ফিরে আসে। খুররামশাহর মুক্ত হবার ফলে ইরানী জনগণ এবং প্রতিরক্ষা যোদ্ধাদের মাঝে আশার আলো ছড়িয়ে পড়ে। তারা খুররামশাহর জয় করার পর নব উদ্যমে আগ্রাসী বাহিনীর বিরুদ্ধে যুদ্ধ চালিয়ে অধিকৃত সমস্ত এলাকা মুক্ত করতে সক্ষম হয়। ইরানীরা নিজেদের ভূখণ্ডের এক ইঞ্চি মাটিও শত্রুদেরকে ছাড় দেয় নি। এরকম অবস্থায় ঈমানী শক্তি ও বীরত্বের অধিকারী ইরানী জাতির চূড়ান্ত বিজয় যখন নিশ্চিত হয়েছে ঠিক তখনি ইরানের বিরুদ্ধে সাদ্দামের আট বছরের যুদ্ধ সমাপ্ত হয়। যুদ্ধের সেই কঠিন দিনগুলো এখন অতিক্রান্ত হয়েছে। কিন্তু খুররামশাহর মুক্তি এবং ইরানী যোদ্ধাদের অসংখ্য বিজয়ী অভিযানের আনন্দময় স্মৃতি চিরদিন অটুট থাকবে।#

 

পার্সটুডে/নাসির মাহমুদ/মো.আবুসাঈদ/  ১৭

 খবরসহ আমাদের ওয়েবসাইটে প্রকাশিত সব লেখা ফেসবুকে পেতে এখানে ক্লিক করুন এবং নোটিফিকেশনের জন্য লাইক দিন

ট্যাগ

মন্তব্য