আগস্ট ০৫, ২০২২ ১৯:১০ Asia/Dhaka
  • বিভিন্ন ইস্যুতে প্রতিবাদ মিছিল, রাহুল গান্ধীসহ কংগ্রেসের নেতা-কর্মীরা আটক

ভারতে বেকারত্ব, মূল্যবৃদ্ধি, পণ্য ও পরিসেবা কর ‘জিএসটি’সহ একাধিক ইস্যুতে আজ শুক্রবার সকালে কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে মাঠে নেমেছে প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেস।

আজ রাজধানী দিল্লিসহ গোটা দেশজুড়ে আন্দোলনের ডাক দেওয়া হয়। ওই ইস্যুতে রাষ্ট্রপতি ভবন এবং প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন পর্যন্ত মিছিল করা হবে বলে আগেই ঘোষণা করা হয়েছিল। কংগ্রেস সূত্রে খবর, দলীয় এমপিরা 'রাষ্ট্রপতি ভবন চলো' কর্মসূচিতে সংসদ ভবন থেকে যাত্রা শুরু করে নবনির্বাচিত রাষ্ট্রপতি দ্রৌপদী মুর্মুর সরকারি বাসভবনে পৌঁছবেন এবং, কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটির সদস্যরা প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন ঘেরাও করতে যাবেন বলে কথা ছিল। 

পূর্ব নির্ধারিত সূচি অনুযায়ী আজ শুক্রবার সকালে কংগ্রেসের বিক্ষোভ মিছিল শুরু হয়। কিন্তু সেটি কিছু দূর এগোতেই তা আটকে দেওয়া হয়।কংগ্রেস এমপিদের নিয়ে মিছিল করে সংসদ থেকে রাষ্ট্রপতি ভবনের দিকে যাচ্ছিলেন কংগ্রেসের সাবেক সভাপতি  রাহুল গান্ধী এমপি। কিন্তু প্রতিবাদ মিছিল বিজয় চক পৌঁছনোর আগেই তাকে এবং অন্যদের আটক করে দিল্লি পুলিস। 

আজ রাজধানী দিল্লিতে একাধিক জায়গায় বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছেন কংগ্রেস নেতা-কর্মীরা। আজ রাস্তায় বসে পড়ে প্রতিবাদে সোচ্চার হন কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াঙ্কা গান্ধীও। পরে তাকেও আটক করা হয়। কংগ্রেসের ওই কর্মসূচি রুখতে শুরু হয় পুলিশি তৎপরতা। এ সময়ে উভয়পক্ষের মধ্যে ধস্তাধস্তি শুরু হয়। কংগ্রেসের দলীয় কর্মীদের অভিযোগ, তাদের টেনে হিঁচড়ে পুলিশ বাসে তুলেছে। ‘দেশে এখন আর গণতন্ত্র অবশিষ্ট নেই। একনায়কতন্ত্র চলছে’ বলে অভিযোগ করেছেন কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী এমপি। #

পার্সটুডে/এমএএইচ/আবুসাঈদ/০৫

বিশ্বসংবাদসহ গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।

ট্যাগ