অক্টোবর ০৪, ২০২১ ১৮:৪২ Asia/Dhaka

ভারতের উত্তর প্রদেশের লখিমপুরের খেরিতে আন্দোলনরত কৃষকদের উপরে গাড়ি চালিয়ে দেওয়াকে কেন্দ্র করে সহিংসতায় ৪ কৃষকসহ ৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। গতকাল (রোববার) সন্ধ্যেয় কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী অজয় মিশ্রের ছেলে আশিস মিশ্রের বিরুদ্ধে গাড়ি চাপা দিয়ে ৪ কৃষককে হত্যা করার অভিযোগ উঠেছে। অন্যদিকে, আন্দোলনকারীদের পাল্টা আক্রমণে ৩ বিজেপি কর্মী ও এক গাড়ি চালকের মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ওই ঘটনায় রাজনৈতিক ও সামাজিক অঙ্গনে তীব্র আলোড়ন সৃষ্টি হয়েছে।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী এ ব্যাপারে সাফাইতে  বলেছেন, ‘আমার ছেলে ঘটনার সময় সেখানে ছিল না। তার বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগই মিথ্যা।’ তিনি আরও বলেন, ‘আমার চালক গাড়ি চালাচ্ছিলেন। দুর্বৃত্তরা পাথর নিক্ষেপ করলে গাড়ি নিয়ন্ত্রণ হারায় এবং দুই কৃষক গাড়ির নীচে চাপা পড়েন। এর পরে তিন বিজেপি কর্মী এবং চালককে পিটিয়ে মারা হয় এবং গাড়িতে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়।’

আজ সন্ধ্যায় কোলকাতার ধর্মতলায় মোমবাতি জ্বালিয়ে প্রতিবাদ মিছিল করল বিভিন্ন গণসংগঠন।

আজ (সোমবার) ভারতের প্রধান বিরোধীদল কংগ্রেসের পক্ষ থেকে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অজয় মিশ্রের পদত্যাগের দাবি জানানো হয়েছে। একইসঙ্গে মন্ত্রীর ছেলে আশিসকে গ্রেফতারের দাবি জানানো হয়েছে।

আজ সন্ধ্যায় কোলকাতার ধর্মতলায় মোমবাতি জ্বালিয়ে প্রতিবাদ মিছিল করল বিভিন্ন গণসংগঠন।

আজ এক সংবাদ সম্মেলনে কংগ্রেসের সিনিয়র নেতা ও ছত্তিসগড়ের মুখ্যমন্ত্রী ভুপেশ বাঘেল বলেন, ‘আমাদের দাবি হল কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র  প্রতিমন্ত্রীকে বরখাস্ত করা  হোক,  তার ছেলের বিরুদ্ধে খুনের মামলা দায়ের করা সহ তাকে অবিলম্বে গ্রেফতার করা  হোক এবং সুপ্রিম কোর্টের  কর্মরত বিচারপতির মাধ্যমে ওই ঘটনার তদন্ত  করা হোক।

আজ সন্ধ্যায় কোলকাতার ধর্মতলায় মোমবাতি জ্বালিয়ে প্রতিবাদ মিছিল করল বিভিন্ন গণসংগঠন।

এদিকে উত্তর প্রদেশে গাড়ি চাপা দিয়ে কৃষক হত্যার ঘটনাকে কেন্দ্র করে পশ্চিমবঙ্গের রাজধানী কোলকাতাসহ বিভিন্ন রাজ্যে  রাজনৈতিক, সামাজিক ও মানবাধিকার সংগঠনের পক্ষ থেকে প্রতিবাদ বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করা হয়।#

পার্সটুডে/এমএএইচ/এমবিএ/৪

বিশ্বসংবাদসহ গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।

 

 

ট্যাগ