জুলাই ০১, ২০২২ ১৮:২৯ Asia/Dhaka
  • দিমিত্রো কুলেবা - হোসেইন আমির আব্দুল্লাহিয়ান
    দিমিত্রো কুলেবা - হোসেইন আমির আব্দুল্লাহিয়ান

কূটনৈতিক উপায়ে ইউক্রেন সংকট সমাধানের ওপর আবারও গুরুত্ব আরোপ করেছে ইরান। ইউক্রেনে রাশিয়ার ‘বিশেষ সামরিক অভিযান’ যখন পঞ্চম মাসের মতো চলছে তখন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেইন আমির-আব্দুল্লাহিয়ান এ মন্তব্য করেছেন।

তিনি ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী দিমিত্রো কুলেবার সঙ্গে এক টেলিফোনালাপে বলেন, ইরান যেকোনো যুদ্ধের বিরোধী এবং কূটনৈতিক উপায়ে সব সমস্যার সমাধান সম্ভব বলে মনে করে।  তিনি বলেন, “সংঘাত শুরুর প্রথম দিন থেকেই আমরা বলে এসেছি আমাদের অবস্থান যুদ্ধের বিপক্ষে এবং আমরা কোনো বিরোধ নিরসনের উপায় হিসেবে যুদ্ধকে উপযুক্ত সমাধান মনে করি না।”

ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, গত তিন দশক ধরে ইউক্রেনের সঙ্গে ইরানের ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক বিরাজ করছে এবং এই সম্পর্ক পারস্পরিক সম্মান ও স্বার্থের ওপর প্রতিষ্ঠিত রয়েছে। তিনি রাশিয়ার সঙ্গে ইউক্রেনের চলমান সংঘাত নিরসনে মধ্যস্থতা করতে ইরানের প্রস্তুতির কথা পুনর্ব্যক্ত করেন। আব্দুল্লাহিয়ান তার ইউক্রেনীয় সমকক্ষ কুলেবানকে তেহরান সফরের আমন্ত্রণ জানান।

টেলিফোনালাপে ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইরানের যুদ্ধ-বিরোধী অবস্থানকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, চলমান সংকট নিরসনের লক্ষ্যে যেকোনো রাজনৈতিক সহযোগিতাকে সাদরে গ্রহণ করবে কিয়েভ। তিনি ইরানের সঙ্গে সকল ক্ষেত্রে বিশেষ করে কৃষি ও কৃষিপণ্য রপ্তানিতে সহযোগিতা শক্তিশালী করার আগ্রহ প্রকাশ করেন।

ইরান ও ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা এমন সময় টেলিফোনে আলাপ করলেন যখন মার্কিন নেতৃত্বাধীন সামরিক জোট হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছে, চলমান ইউক্রেন সংকটকে কেন্দ্র করে রাশিয়ার সঙ্গে ন্যাটোর অনিয়ন্ত্রিত যুদ্ধ বেধে যেতে পারে।#

পার্সটুডে/এমএমআই/১

বিশ্বসংবাদসহ গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।

ট্যাগ