২০১৯-১০-২১ ১৭:৫৪ বাংলাদেশ সময়
  • ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাইয়্যেদ আব্বাস মুসাভি
    ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাইয়্যেদ আব্বাস মুসাভি

সিরিয়ার ভেতরে তুরস্কের সামরিক ঘাঁটি প্রতিষ্ঠার বিরোধিতা করেছে ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরান। পাশাপাশি সিরিয়ার ভৌগোলিক অখণ্ডতার প্রতি সম্মান দেখানোর জন্য আঙ্কারার প্রতি আহ্বান জানিয়েছে তেহরান।

আজ (সোমবার) ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাইয়্যেদ আব্বাস মুসাভি বলেছেন, নিজেদের ভূখণ্ডে তুরস্কের সামরিক ঘাঁটি স্থাপন করতে পারে কিন্তু সিরিয়ার মাটিতে তুরস্কের সামরিক ঘাঁটি কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। এটি নিতান্তই জাতিসংঘের একটি সদস্য দেশের সার্বভৌমত্বের লঙ্ঘন।

সিরিয়ার ভেতরে তুর্কি সেনা অভিযান

আব্বাস মুসাভি বলেন, নিরাপত্তা নিয়ে তুরস্কের যে উদ্বেগ তা বৈধ তবে সিরিয়ার সার্বভৌমত্বের প্রতি পূর্ণ সম্মান দেখিয়ে যুক্তিপূর্ণভাবে সে সমস্যার সমাধান করতে হবে। তিনি আবারো জোর দিয়ে বলেন, সিরিয়ার সার্বভৌমত্ব এবং ভৌগোলিক অখণ্ডতার প্রতি সমস্ত দেশকে অবশ্যই সম্মান দেখাতে হবে। ইরানের এই মুখপাত্র বলেন, কুর্দি গেরিলা, সিরিয়া সরকার এবং তুরস্কের যে ত্রিমুখী সংকট চলছে এ বিষয়ে মধ্যস্থতা করার জন্য ইরান প্রস্তুত রয়েছে।

সম্প্রতি, তুরস্ক সিরিয়ার অভ্যন্তরে কুর্দি গেরিলাদের বিরুদ্ধে সামরিক অভিযান চালাচ্ছে। এ অভিযানে তুরস্ককে সমর্থন দিচ্ছে সিরিয়ার সরকার-বিরোধী গোষ্ঠি ফ্রী সিরিয়ান আর্মি বা এফএসএ। সিরিয়া সরকার এ অভিযানকে আগ্রাসন বলে তার নিন্দা জানিয়েছে। পাশাপাশি সীমান্তবর্তী কুর্দি অধ্যুষিত শহরগুলোতে সিরিয়া সরকার সেনা পাঠিয়েছে।#

পার্সটুডে/এসআইবি/২১

ট্যাগ

মন্তব্য