সেপ্টেম্বর ২৮, ২০২১ ১৩:১১ Asia/Dhaka
  • ‘রেডিও তেহরানের মাধ্যমে ইসলামের ইতিহাসের সাথে সম্পৃক্ত হবার সুযোগ মেলে’

মহাশয়, রেডিও তেহরান ইসলামকে জানার সুন্দর এক মাধ্যম যেখানে কান পেতে ইসলামের নিগূঢ় তথ্য, নীতি আদর্শ এবং ইতিহাসের সাথে সম্পৃক্ত হবার সুযোগ মেলে। গত ২৬ সেপ্টেম্বর "হযরত ইমাম হুসাইন (আ.)'র শাহাদাতের চল্লিশা বা চেহলাম বার্ষিকী" শীর্ষক পরিবেশনা থেকে আমি অনেক অজানা তথ্যের সাথে পরিচিত হবার সুযোগ পেলাম। আর এজন্য রেডিও তেহরানকে অনেক অনেক ধন্যবাদ।

ইমাম হুসাইনের চেহলামে বিশ্বের বৃহত্তম সমাবেশ এবং এ সংক্রান্ত খবরগুলোকে সাম্রাজ্যবাদের দোসর মিডিয়াগুলো খুব কম গুরুত্ব দিয়ে প্রচার করলেও রেডিও তেহরান স্বাভাবিকভাবে সর্বাধিক গুরুত্ব দিয়ে ইসলামের এই অনির্বাণ শিখা ধীরে ধীরে বিশ্বজনমত আর বিশ্ব বিবেকের কাছে তুলে ধরাতে বৃহত্তর ইসলামী ঐক্য ও মানব উন্নয়নের বিশাল মাধ্যম হয়ে দেখা দিয়েছে।
রেডিও তেহরানের বদৌলতে আমরা অমুসলমান হিসাবে জানতে পেরেছি যে, ইমাম হুসাইন (আ) মানবজাতির জন্য মুক্তির আশা জাগানো এক অনন্য সংগ্রামী আদর্শের প্রতীক।

ইমাম হুসাইন-এর জন্য শোক প্রকাশের স্থায়িত্ব প্রসঙ্গে বিশ্বনবী (সা) বলেছেন, ‘নিশ্চয়ই প্রত্যেক মুমিনের হৃদয়ে হুসাইন-এর শাহাদাতের ব্যাপারে এমন ভালোবাসা আছে যে তার উত্তাপ কখনো কমবে না।’ 

ইমাম হুসাইন-এর জন্য মানুষ যুগ যুগ ধরে যত অশ্রুপাত করেছে তা যদি জমা করা হতো তাহলে হয়তোবা একটি সাগরের রূপ নিত। ইসলামকে রক্ষার জন্য ইমাম হুসাইনের ত্যাগ-তিতিক্ষা ইসলামের ইতিহাসে স্বর্ণাক্ষরে লেখা থাকবে। ইমাম হোসাইন (আ) শাহাদাতের যে আদর্শ রেখে গেছেন তা চিরস্মরণীয়। তা না হলে ইসলাম চিরতরে বিদায় নিত এবং ইসলাম যে সব ধরনের অন্যায় জুলুম ও মুনাফিকির বিরুদ্ধে সংগ্রামের ধর্ম মানুষ তা ভুলে যেত। 

গাজী আব্দুর রশিদের সুমিষ্ট কণ্ঠে কবি ফররুখ আহমদের ‘শহীদ কারবালা’ শীর্ষক কবিতা আবৃত্তি অনুষ্ঠানের সঙ্গে এমন সাযুজ্য তৈরি করেছিল তা আমার মনকে নাড়া দিয়েছে বৈকি। সুন্দর অনুষ্ঠান উপহার দেবার জন্য ‘ইসলামের দর্পন’ রেডিও তেহরানকে আরো একবার ধন্যবাদ।

 

ধন্যবাদান্তে
বিধান চন্দ্র সান্যাল
ঢাকা কলোনী, বালুরঘাট
দক্ষিণ দিনাজপুর, পশ্চিমবঙ্গ, ভারত।
 

পার্সটুডে/আশরাফুর রহমান/২৮

বিশ্বসংবাদসহ গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন। 

ট্যাগ