জুন ২৬, ২০২২ ২০:০৯ Asia/Dhaka
  • মুহাম্মদ নাজিম উদ্দিন
    মুহাম্মদ নাজিম উদ্দিন

আসসালামু আলাইকুম, আশা করি রেডিও তেহরান বাংলা বিভাগের সকলে ভালো ও সুস্থ আছেন। দীর্ঘদিন ধরে আপনাদের প্রচারিত বাংলা অনুষ্ঠানের শ্রোতা হিসেবে বলতে পারি যে, অতীতের যে কোনো সময়ের চাইতে বর্তমানে রেডিও তেহরান-এর নানা শ্রোতাবান্ধব পদক্ষেপ আমাকে মুগ্ধ করেছে। বৈচিত্র্যপূর্ণ অনুষ্ঠানের পাশাপাশি শ্রোতাদের নিয়ে বিভিন্ন ধরনের তৎপরতা আমাকে আকৃষ্ট করে।

শ্রোতাদের বাছাই করা মতামত ও তথ্যপূর্ণ লেখাগুলো দিয়ে পার্সটুডে ডটকম-এর মতামত বিভাগকে ভরিয়ে দেওয়ার ব্যবস্থা করেছেন আপনারা। এটা যেকোনো শ্রোতা ও লেখকের একটি বড় পাওয়া; বিশ্বের আর কোনো বেতারে এমন দৃষ্টান্ত চোখে পড়েনি।

বিভিন্ন ধরনের প্রতিযোগিতা ও তাতে পুরস্কার দেবার ব্যবস্থা রাখায় শ্রোতারা অনেক বেশি আগ্রহী হয়ে উঠেছে। দেরিতে হলেও ভারতের শ্রোতা বন্ধু যারা রেডিও তেহরানের বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় বিজয়ী হয়েছিলেন তারা ইতোমধ্যে পুরস্কার হাতে পেয়ে ভীষণ খুশি হয়েছেন। এর প্রমাণ আমরা প্রিয়জন অনুষ্ঠান, ফেসবুক স্ট্যাটাস ও প্রিয়জন গ্রুপে তাঁদের মতামত দেখে ও শুনে জানতে পেরেছি। যার পরিপ্রেক্ষিতে রেডিও তেহরান আরো কিছু নতুন শ্রোতা পেয়েছে, যাঁরা নতুনভাবে যোগাযোগ করতে শুরু করেছেন।

নতুন নতুন শ্রোতার পাশাপশি, পুরোনো শ্রোতারাও আবার নব উদ্যমে অনুষ্ঠান ও চিঠি লেখা শুরু করেছে। প্রিয়জন অনুষ্ঠানে এ সকল শ্রোতাদের মতামতপূর্ণ চিঠির আসর যেন এক জমাটি আড্ডার মতো মনে হয়। অনুষ্ঠানের শেষে মাঝে মাঝেই ইসলামী সংগীতের মূর্ছনায় হারিয়ে যায় অন্য ভুবনে। আপনাদের সকলের সুস্বাস্থ্য কামনায়-

 

শুভেচ্ছান্তে,

মুহাম্মদ নাজিম উদ্দিন,

বারুইপাড়া, মুর্শিদাবাদ, পশ্চিম বঙ্গ, ভারত।

 

পার্সটুডে/আশরাফুর রহমান/২৬

বিশ্বসংবাদসহ গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।

ট্যাগ