জুন ১৭, ২০২২ ১৫:০৬ Asia/Dhaka

দখলকৃত পশ্চিম তীরের জেনিন শহরে ইসরাইলি সেনাদের গুলিতে তিন ফিলিস্তিনি যুবক শহীদ হয়েছেন। আজ শুক্রবার সকালে ঐ যুবকদের বহনকারী একটি গাড়িতে নির্বিচারে গুলিবর্ষণ করে দখলদার সেনারা। এর ফলে তিন আরোহীর সবাই শহীদ হন।

ঘটনাস্থলে থাকা আন্তর্জাতিক এক বার্তা সংস্থার একজন ফটোগ্রাফার জানিয়েছেন, তিনি মর্গে তিন তরুণের মৃতদেহ এবং অসংখ্য বুলেটবিদ্ধ একটি গাড়ি দেখেছেন।

এই হত্যাকাণ্ডের নিন্দা জানিয়ে ফিলিস্তিনের স্বশাসন কর্তৃপক্ষের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বলেছে- আমেরিকার প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সফরকে সামনে রেখে এই হত্যাকাণ্ড ঘটানো হয়েছে। বাইডেনের সফরের আগে আমেরিকা সেখানে উত্তেজনা ও সহিংসতা হ্রাসের যে আহ্বান জানিয়েছে তারই জবাবে এই পদক্ষেপ নিয়েছে ইসরাইল।

আগামী ১৩ থেকে ১৬ জুলাই দখলদার ইসরাইল এবং কয়েকটি আরব দেশ সফর করবেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। এই সফরকে সামনে রেখে ফিলিস্তিনিদের ওপর হত্যা-নির্যাতন আগের চেয়ে আরও বেড়েছে।

এদিকে, ফিলিস্তিনের ইসলামি প্রতিরোধ আন্দোলন হামাস ও ইসলামি জিহাদসহ সেখানকার প্রতিরোধ সংগঠনগুলো তিন ফিলিস্তিনি যুবককে হত্যার তীব্র নিন্দা জানিয়েছে। তারা আলাদা বিবৃতিতে বলেছে, শহীদদের রক্ত বৃথা যাবে না।

আমেরিকার মানবাধিকারের স্লোগান যে কেবলি লোকদেখানো তা ফিলিস্তিন পরিস্থিতি থেকে স্পষ্ট।#   

পার্সটুডে/এসএ/১৭

বিশ্বসংবাদসহ গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।

ট্যাগ