জুলাই ০৩, ২০২২ ০৫:৪৯ Asia/Dhaka
  • শনিবার বিকেলে প্রেসিডেন্ট আসাদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন আব্দুল্লাহিয়ান
    শনিবার বিকেলে প্রেসিডেন্ট আসাদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন আব্দুল্লাহিয়ান

সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ তার দেশে উত্তেজনা সৃষ্টি করার জন্য পশ্চিমা দেশগুলোর তীব্র সমালোচনা করেছেন। একইসঙ্গ তিনি ইরানকে আঞ্চলিক সমস্যাগুলো সমাধানের অন্যতম প্রধান কারিগর বলে মন্তব্য করেছেন। সিরিয়া সফররত ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেইন আমির-আব্দুল্লাহিয়ান শনিবার দামেস্কে তার সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে গেলে প্রেসিডেন্ট আসাদ এ মন্তব্য করেন।

শনিবারই একটি শক্তিশালী প্রতিনিধিদল নিয়ে আব্দুল্লাহিয়ান দামেস্কে পৌঁছান। দামেস্ক আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে স্বাগত জানান তার সিরীয় সমকক্ষ ফয়সাল মিকদাদ।

আব্দুল্লাহিয়ানের সঙ্গে সাক্ষাতে প্রেসিডেন্ট আসাদ বলেন, ইরান মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন সংকটের রাজনৈতিক সমাধানের গুরুত্বপূর্ণ অনুষঙ্গ হয়ে উঠেছে দেখে দামেস্ক সন্তুষ্ট। তিনি যুদ্ধ এড়িয়ে অন্য যেকোন উপায়ে সিরিয়া সংকটের সমাধানকে স্বাগত জানাবেন বলে মন্তব্য করেন।

বাশার আসাদ পশ্চিমা দেশগুলোর সমালোচনা করে বলেন, এসব দেশ সিরিয়াকে আবার যুদ্ধের দিকে ঠেলে দিয়ে দামেস্কের কাছ থেকে রাজনৈতিক ছাড় আদায়ের চেষ্টা করছে। সাক্ষাতে সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট ইরানের সঙ্গে তার দেশের সম্পর্ককে ‘কৌশলগত’ আখ্যায়িত করে বলেন, বিগত ৪০ বছর ধরে এই সম্পর্কের উন্নতি ঘটছে।

এ সময় ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, সিরিয়ার শত্রুরা এই আরব দেশটিকে অস্থিতিশীল করার জন্য নানা ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হচ্ছে। তিনি সিরিয়ার সার্বভৌমত্ব লঙ্ঘন করে দেশটির ওপর ধারাবাহিক ইসরাইলি হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়ে বলেন, মানবাধিকারের কথিত প্রবক্তা পশ্চিমা দেশগুলোর নীরবতা ইসরাইলকে ধৃষ্ট করে তুলেছে।

সাক্ষাতে প্রেসিডেন্ট আসাদকে ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহিল উজমা খামেনেয়ী ও প্রেসিডেন্ট সাইয়্যেদ ইব্রাহিম রায়িসির শুভেচ্ছা পৌঁছে দিয়ে বলেন, সিরিয়ার প্রেসিডেন্টের সাম্প্রতিক তেহরান সফর ছিল দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক শক্তিশালী করার গুরুত্বপূর্ণ টার্নিং পয়েন্ট। প্রেসিডেন্ট আসাদ গত মে মাসে ইরান সফর করেছিলেন।#

পার্সটুডে/এমএমআই/‌৩

বিশ্বসংবাদসহ গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।

 

ট্যাগ