আগস্ট ০৬, ২০২২ ১৭:২৮ Asia/Dhaka
  • তেল আবিব ও বেন গুরিয়ন বিমানবন্দরে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা করেছে ইসলামি জিহাদ

ফিলিস্তিনের প্রতিরোধ সংগঠন ইসলামি জিহাদের সামরিক শাখা আল-কুদস ব্রিগেডস ঘোষণা করেছে, তারা দখলদার ইসরাইলের রাজধানী তেল আবিব এবং প্রধান বিমানবন্দর বেন গুরিয়নে রকেট ও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে।

গতকাল শুক্রবার গাজা উপত্যকায় বিমান হামলা চালায় ইসরাইলি বাহিনী। এই হামলায় এ পর্যন্ত ১৩ ফিলিস্তিনি শহীদ ও ৮৩ জন আহত হয়েছেন। এর জবাবে ইসরাইলের বিভিন্ন এলাকায় ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করছে ইসলামি জিহাদের সামরিক শাখা আল-কুদস ব্রিগেডস।

গতরাত নয়টা থেকে ইসরাইলের বিরুদ্ধে পাল্টা হামলা শুরু করে এই সংগঠন। ইসরাইলের বিভিন্ন স্থান লক্ষ্য করে এই সংগঠনটি অন্তত ৬০টি রকেট ও ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে। এছাড়া অন্যান্য প্রতিরোধ সংগঠনও ইসরাইলের বিভিন্ন এলাকা লক্ষ্য করে রকেট ও ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে বলে খবর পাওয়া যাচ্ছে। 

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টেলিগ্রামে প্রকাশিত এক বার্তায় আল-কুদস ব্রিগেডস জানিয়েছে, তারা তেল আবিব ও বেন গুরিয়ন বিমানবন্দর ছাড়াও আশদুদ, বীরশেবা, আশকেলন, নেটিভট ও সেদিরুট এলাকা লক্ষ্য করে ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছেন।

গতকালের হামলার পর ইসলামি জিহাদ আন্দোলনের মহাসচিব জিয়াদ আন-নাখালা হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছেন, শুক্রবারের আগ্রাসনের পর ইহুদিবাদী ইসরাইলকে ‘অবিরাম’ সংঘাতের মুখোমুখি হতে হবে। এবারের হামলার পর ইসরাইলের সঙ্গে আর কোনো যুদ্ধবিরতি হবে না বলে তিনি জোর দিয়ে উল্লেখ করেন। তবে মিশর মধ্যস্থতার চেষ্টা করছে বলে খবর পাওয়া গেছে।#   

পার্সটুডে/এসএ/৬

বিশ্বসংবাদসহ গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।

ট্যাগ