মার্চ ০৬, ২০২১ ০৬:১১ Asia/Dhaka
  • গত বছর  ১৫ সেপ্টেম্বর ইসরাইলের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপন করে বাহরাইন ও সংযুক্ত আরব আমিরাত
    গত বছর ১৫ সেপ্টেম্বর ইসরাইলের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপন করে বাহরাইন ও সংযুক্ত আরব আমিরাত

সংযুক্ত আরব আমিরাত, বাহরাইন ও সৌদি আরব ইহুদিবাদী ইসরাইলের সঙ্গে মিলে ইরানবিরোধী জোট গঠনের যে ষড়যন্ত্র করছে তাকে মুসলিম উম্মাহর সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা বলে মন্তব্য করেছে বাহরাইনের প্রধান বিরোধীদল আল-ওয়েফাক ন্যাশনাল ইসলামিক সোসাইটি।

দলটি এক বিবৃতিতে বলেছে, বাহরাইনের আলে খলিফা সরকার ইরানবিরোধী জোটে জড়ানোর যে সিদ্ধান্ত নিয়েছে তা মুসলিম উম্মাহর পাশাপাশি বাহরাইনের জাতীয় মূল্যবোধের সঙ্গে চরম বিশ্বাসঘাতকতার শামিল।  বিবৃতিতে বলা হয়, “ইহুদিবাদীদের সঙ্গে যারা লেগে থাকে তাদেরকে তারা দ্রুত পানিতে ডুবিয়ে দেয়।” বাহরাইনের বেশিরভাগ মানুষ ইহুদিবাদী ইসরাইলের সঙ্গে তাদের দেশের ঘনিষ্ঠতা মেনে নেবে না বলেও বিবৃতিতে জানিয়েছে আল-ওয়েফাক।

ইসরাইলি একটি অজ্ঞাত সূত্রের বরাত দিয়ে গত ১ মার্চ জেরুজালেম পোস্ট জানিয়েছে, ইসরাইল, সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও বাহরাইন সম্প্রতি নিজেদের মধ্যে সহযোগিতা শক্তিশালী করে একটি ইরানবিরোধী জোট গঠনের বিষয়টিতে পর্যালোচনা করে দেখেছে।

এদিকে রাশিয়ার আরটি নিউজ চ্যানেলকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে বুধবার ইরানের সাবেক প্রতিরক্ষামন্ত্রী ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আহমাদ ওয়াহিদি  পারস্য উপসাগরীয় দেশগুলোকে সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, তারা যেন ইসরাইলের সঙ্গে ইরানবিরোধী জোটে যোগ না দেয়। সেক্ষেত্রে এর ‘ভয়াবহ পরিণতি’ বলে তিনি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন। জেনারেল ওয়াহিদি বলেন, সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত বা বাহরাইন- এই তিন দেশের কারো পক্ষে ইরানকে মোকাবিলা করা সম্ভব নয়।#

পার্সটুডে/এমএমআই/৬

বিশ্বসংবাদসহ গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।

 

ট্যাগ