মে ১৪, ২০২২ ১৫:২৯ Asia/Dhaka
  • দিমিত্রি মেদভেদেভ
    দিমিত্রি মেদভেদেভ

রাশিয়ার সাবেক প্রেসিডেন্ট এবং দেশটির বর্তমান জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদের ডেপুটি চেয়ারম্যান দিমিত্রি মেদভেদেভ বলেছেন, ইউক্রেন ইস্যুতে তার দেশের ওপর আমেরিকা এবং পশ্চিমা মিত্র দেশগুলো যে কঠোর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে তাতে বর্তমান বিশ্ব ব্যবস্থা বদলে যাবে।  

গতকাল (শুক্রবার) সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম টেলিগ্রামে দেয়া এক পোস্টে তিনি এই মন্তব্য করেন। মেদভেদেভ বলেন, পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞায় শুধুমাত্র রাশিয়া ক্ষতিগ্রস্ত হবে না বরং যারা এই নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে তারা এবং আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় সবাই ক্ষতির শিকার হবে।

দিমিত্রি মেদভেদেভ বলেন, পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞার কারণে বিশ্ব সরবরাহ ব্যবস্থা ধ্বংস হয়ে গেছে এবং বড় রকমের সরবরাহ সংকট সৃষ্টির ঝুঁকি তৈরি হয়েছে। রাশিয়ার আকাশপথ ব্যবহার করতে না পারার কারণে পশ্চিমা কোনো কোনো এয়ারলাইন্স ধ্বংস হয়ে যেতে পারে বলে তিনি ইঙ্গিত দেন।

রাশিয়ার সাবেক প্রেসিডেন্ট বলেন, যেসব দেশ রাশিয়ার তেল রপ্তানির ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে তাদের সঙ্কটই মারাত্মক আকার ধারণ করবে এবং এ সমস্ত দেশের জনগণকে চড়ামূল্যে তেল এবং গ্যাস ব্যবহার করতে হবে। নিষেধাজ্ঞা বহাল থাকলে তেল ও গ্যাসের দাম বাড়তেই থাকবে বলে তিনি আশংকা করেন। এছাড়া কিছু দেশে পূর্ণমাত্রায় খাদ্য সংকট দেখা দেবে যা এক পর্যায়ে দুর্ভিক্ষে পরিণত হবে।

পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞায় বদলে যাবে বিশ্ব ব্যবস্থা

মেদভেদেভ বলেন, নিষেধাজ্ঞার কারণে জাতীয় মুদ্রার অস্থিতিশীলতা, মুদ্রাস্ফীতি সৃষ্টি এবং ব্যক্তিগত সম্পদের আইনগত সুরক্ষা ব্যবস্থা ধ্বংস হয়ে যাবে যাতে অর্থনৈতিক জরুরি অবস্থা দেখা দেবে। এর প্রভাব পড়বে কতগুলো দেশ অথবা পুরো আন্তর্জাতিক জোটের ওপর।

পাশাপাশি যেসব অঞ্চলে দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন রকমের সমস্যা বিরাজমান রয়েছে সেখানে আঞ্চলিক সংঘাত দেখা দিতে পারে। এর সুযোগ নিয়ে সন্ত্রাসী গোষ্ঠীগুলো তাদের তৎপরতা বাড়াবে। এছাড়া সম্ভাব্য জীবাণু অস্ত্র ব্যবহারের কারণে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে অন্যায্য সহযোগিতার ফলে নতুন করে মহামারি দেখা দিতে পারে। দিমিত্রি মেদভেদেভ সুস্পষ্ট করে বলেন, পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞা থেকে সৃষ্ট নানাবিধ সংকটের কারণে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে নতুন জোট গঠন হবে। এতে নতুন একটি নিরাপত্তা বলয় গড়ে উঠবে।#

পার্সটুডে/এসআইবি/১৪

ট্যাগ