আগস্ট ১২, ২০২২ ১০:০৩ Asia/Dhaka
  • রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের ডেপুটি চিফ অব স্টাফ সের্গেই কিরিয়েঙ্কো
    রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের ডেপুটি চিফ অব স্টাফ সের্গেই কিরিয়েঙ্কো

রাশিয়া বলেছে, দেশটি ‘নিশ্চিতভাবে’ ইউক্রেনে মার্কিন নেতৃত্বাধীন সামরিক জোট ন্যাটোর বিরুদ্ধে যুদ্ধ করছে; ইউক্রেনের বিরুদ্ধে নয়।রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের ডেপুটি চিফ অব স্টাফ সের্গেই কিরিয়েঙ্কো বৃহস্পতিবার মস্কোয় তরুণ রাজনীতিবিদদের এক সমাবেশে একথা বলেন।

তিনি বলেন, ন্যাটোর পক্ষ হয়ে রাশিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধ করার জন্য ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভোলোদিমির জেলেনস্কি তার দেশের জনগণকে বিক্রি করে দিয়েছেন।

গত ২৪ ফেব্রুয়ারি রাশিয়া ইউক্রেনে বিশেষ সামরিক অভিযান শুরু করার পর আমেরিকাসহ পশ্চিমা দেশগুলো এই যুদ্ধে সরাসরি হস্তক্ষেপ না করলেও কিয়েভকে বিপুল পরিমাণ সমরাস্ত্র ও জ্বালানী সরবরাহ করে যাচ্ছে। রাশিয়া বারবার বলে যাচ্ছে যে, ইউক্রেনের প্রতি পশ্চিমা দেশগুলোর সহযোগিতার কারণে এ যুদ্ধ দীর্ঘায়িত হচ্ছে। রাশিয়া পশ্চিমাদের সরবরাহ করা সমরাস্ত্রের ভাণ্ডারে হামলা চালানোকে তার ন্যায়সঙ্গত অধিকার বলেও ঘোষণা করেছে।

ওদিকে মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন বলেছেন, ওয়াশিংটন কিয়েভের প্রয়োজন অনুযায়ী ইউক্রেনকে সমরাস্ত্র সরবরাহ করে যাবে কিন্তু ন্যাটো দেশটিতে রাশিয়ার বিরুদ্ধে কোনোরকম ঝামেলায় জড়াবে না।

এ সম্পর্কে রুশ প্রেসিডেন্টের ডেপুটি প্রধান কিরিয়েঙ্কো আরো বলেন, ইউক্রেনে যতদিন পশ্চিমাদের স্বার্থ থাকবে ততদিন তারা দেশটির জনগণকে মৃত্যুর মুখে ঠেলে দিতে থাকবে। তিনি স্পষ্ট করে বলেন, ন্যাটো জোট ইউক্রেনের জনগণকে দিয়েই রাশিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধ করে যাচ্ছে। ইউক্রেনের শেষ নাগরিকটি বেঁচে থাকা পর্যন্ত এই যুদ্ধ চালিয়ে নেবে ন্যাটো।

পার্সটুডে/এমএমআই/১২

বিশ্বসংবাদসহ গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।

 

ট্যাগ