২০১৯-১১-০৭ ১৩:২৬ বাংলাদেশ সময়
  • ব্রায়ান হুক
    ব্রায়ান হুক

ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরান বিষয়ক মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের বিশেষ দূত ব্রায়ান হুক ইরানের তেল বিক্রি উপর থেকে নিষেধাজ্ঞা শিথিলের সম্ভাবনা নাকচ করে দিয়েছেন। তিনি বলেছেন, ইরানের বিরুদ্ধে জবরদস্তিমূলক পদক্ষেপের অবসান ঘটানোর জন্য প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের মধ্যে কোনো তাড়াহুড়ো নেই।

ইরানের তেল বিক্রির ওপর আরোপিত মার্কিন নিষেধাজ্ঞা শিথিল করার ব্যাপারে যখন জল্পনা চলছে তখন মার্কিন জ্বালানি বিষয়ক এসঅ্যান্ডপি গ্লোবাল প্ল্যাটকে দেয়া সাক্ষাতকারে এ মন্তব্য করলেন হুক। আন্তর্জাতিক অঙ্গনে এমন জল্পনা চলছে যে, ইরান থেকে অপরিশোধিত তেল কেনার ব্যাপারে চীনকে ছাড় দিতে পারে আমেরিকা।

ইরানের তেলবাহী ট্যাংকার

এ সম্পর্কে ব্রায়ান হক বলেন, তেহরানের ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচি এবং আঞ্চলিক ভূমিকা সম্পর্কে ইরানের সঙ্গে চূড়ান্ত চুক্তিতে না পৌঁছানো পর্যন্ত ইরানের তেল বিক্রির ক্ষেত্রে কোনো রকমের ছাড় দেয়ার চিন্তা করছে না ওয়াশিংটন। তিনি বলেন, মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও যে ১২ দফা দাবি দিয়েছে তাই ইরানকে মেনে নিতে হবে। ২০১৮ সালের মে মাসে মাইক পম্পেও ওই দাবি উত্থাপন করেন যা তেহরান নাকচ করেছে এবং আন্তর্জাতিক অঙ্গনে আমেরিকার বহু মিত্র দেশও একে অসম্ভব দাবি বলে উল্লেখ করেছে।

এদিকে, ব্রায়ান হুক এমন বক্তব্য দিলেও জাহাজ চলাচল ও তেল বিক্রি বিষয়ক বিভিন্ন উপাত্ত থেকে দেখা যাচ্ছে- গত সেপ্টেম্বর মাসেও ইরান প্রতিদিন চীনের কাছে দুই থেকে আড়াই লাখ ব্যারেল তেল রপ্তানি করেছে। চীনের কাছে ইরানের তেল রপ্তানির এ উপাত্ত ব্রায়ান হুকের বক্তব্যকে কার্যত প্রশ্নের মুখে ফেলে দিয়েছে।#

পার্সটুডে/এসআইবি/৭

ট্যাগ

মন্তব্য